বেগম জিয়াকে সক্রেটিসের সঙ্গে তুলনা করে বিপাকে রিজভী, জ্ঞানের অভাব বলছেন বিশ্লেষকরা

0
328

নিউজ ডেস্ক : দুর্নীতি দায়ে দণ্ডিত বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে গ্রিক দার্শনিক সক্রেটিসের সঙ্গে তুলনা করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভী আহমেদ।
রিজভী দাবি করেছেন, সক্রেটিস যেমন তার কথা ও সত্য উচ্চারণ থেকে দ্বিধান্বিত হননি তেমনি বেগম জিয়াও সত্য উচ্চারণের জন্য জেল-জুলুম সহ্য করছেন। শুক্রবার (১০ মে) রাজধানীর নয়াপল্টনের একটি অনুষ্ঠানে বেগম জিয়াকে সক্রেটিসের সঙ্গে তুলনা করেন রিজভী। এদিকে বেগম জিয়ার মতো দুর্নীতি মামলার আসামিকে মহান একজন দার্শনিক ও জ্ঞানের বাতিঘরের সঙ্গে অপ্রাসঙ্গিক তুলনা করায় রাজনৈতিক মহলে নানা সমালোচনার জন্ম হয়েছে। রিজভী অতি উৎসাহী হয়ে সত্য-মিথ্যার বিভেদ করতে ব্যর্থ হয়ে একটি মহলকে খুশি করতেই এমন ঐতিহাসিক মিথ্যাচার করেছেন বলেও বিভিন্ন মহলে গুঞ্জন চলছে। সঠিক জ্ঞানের অভাবে রিজভী আহমেদ সত্য-মিথ্যাকে গুলিয়ে ফেলছেন বলেও সমালোচনা করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। একজন রাজনৈতিক বিশ্লেষকের সঙ্গে একান্ত আলাপকালে সমালোচনার বিষয়টি সম্পর্কে জানা গেছে। রিজভী আহমেদকে কুয়োর ব্যাঙ এর সঙ্গে তুলনা করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের সাবেক এক অধ্যাপক ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক বলেন, সক্রেটিস ছিলেন গণতন্ত্রের সুতিকাগার। তিনি আজীবন ন্যায় ও সত্যের জন্য লড়াই করে জীবন বিসর্জন দিয়েছেন। অথচ বিএনপি নেত্রী তো আকণ্ঠ দুর্নীতিতে নিমজ্জিত। তার অদূরদর্শিতা কারণে বিএনপি-জামায়াতের শাসনামলে দেশ দুর্নীতিতে ৫ বার চ্যাম্পিয়ন হয়। তার মতো দুর্নীতি গ্রস্ত ব্যক্তিকে মহান সক্রেটিসের সঙ্গে তুলনা করাটা বোকামি ও হাস্যকর। তিনি আরো বলেন, বিএনপি নেতাদের পর্যাপ্ত রাজনৈতিক জ্ঞান ও বুদ্ধিমত্তার অভাব রয়েছে। বিএনপি নেতারা মানুষ দেখানো সাহিত্য চর্চা করেন যার কারণে দুর্নীতি গ্রস্ত নেত্রীর দোষ-ত্রুটি তাদের চোখে পড়ে না। দলটির আবাসিক নেতা রিজভী আহমেদ মাঝেমধ্যে এমন সব বিতর্কিত মন্তব্য করেন যার কারণে বিএনপিকেও বিব্রত হতে হয়। আমার ধারণা বেগম জিয়া ও তারেক রহমানের চেয়ে বেশি বিএনপি করেন রিজভী আহমেদ। চাটুকারিতার রাজনীতির কারণে বিএনপির আজকে বেহাল দশা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here