পাবনায় স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ ?

0
40

পিপ  : পাবনার সাঁথিয়ায় ইফাত আরা ইয়াসমিন মীম নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে তার স্বামীর বিরুদ্ধে। নিহত গৃহবধূ উপজেলার আমাইকোলা গ্রামের আয়নাল আকন্দ এর ছেলে মো. আজাদের স্ত্রী ও মঞ্জুর কাদের মহিলা কলেজের এইচএসসি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার দিবাগত রাতে উপজেলার আমাইকোলা গ্রামে স্বামীর বাড়িতে। এ ঘটনায় সাঁথিয়া থানায় একটি মামলা হয়েছে। পুলিশ ও পারিবারিক সুত্রে জানা যায়, প্রায় দুই বছর আগে বেড়া উপজেলার হাতিগাড়া গ্রামের ইকবাল হোসেনের মেয়ে ইফাত আরা ইয়াসমিন মীম‘র সঙ্গে বিয়ে হয় পার্শ্ববর্তী আমাইকোলা গ্রামের আয়নাল আকন্দের ছেলে মো. আজাদের সাথে। ঘটনার রাতে আজাদের সাথে মীমের ঝগড়া হয়। এক পর্যায়ে মীমের স্বামী আজাদ মীমকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে ফাসি নিয়েছে বলে প্রচার করে। পরে তাকে বেড়া হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত ডাক্তার মীমকে মৃত বলে ঘোষণা করে থানায় ফোন দেন। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। এ ব্যাপারে মীমের বাবা ইকবাল হোসেন স্বামী আজাদ কে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করলেও পুলিশ সে মামলা না নিয়ে একটি ইউডি মামলা দায়ের করে বলে মীমের বাবা সাংবাদিকদের অভিযোগ করেন। তিনি বলেন, ‘আজাদ আমার মেয়েকে মেরে ফেলেছে। আমার মেয়ে আত্মহত্যা করতে পারে না। তিনি বলেন, পুলিশকে বললাম আজাদ আমার মেয়েকে মেরে ফেলেছে কিন্তু পুলিশ তা না শুনে আমাকে ধমক দিয়ে বলেন, এখানে সাইন করেন’। অপরদিকে সাঁিথয়া থানার এসআই মামুন মীমের বাবার কথা অস্বীকার করে বলেন, “মীমের শশুর আয়নাল আকন্দ পুলিশ কে জানিয়েছেন, বুধবার স্বামীর অনুপস্থিতিতে মীম তার এক বান্ধবী ও এক বন্ধু ওদের বাড়িতে বেড়াতে নিয়ে আসে। এ নিয়ে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়। এরই এক পর্যায়ে মীম স্বামীর উপর অভিমান করে গলায় ফাঁস নিয়ে আত্মহত্যা করে”।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here